আজ ৭ই মাঘ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ, ২১শে জানুয়ারি, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ

কুয়েতের প্রধানমন্ত্রী শেখ সাবাহ আল-খালিদ আল-সাবাহ।

কুয়েতে শেখ সাবাহ সরকারের পদত্যাগ

বিরোধী আইনপ্রণেতাদের সঙ্গে সৃষ্ট অচলাবস্থার মধ্যেই কুয়েতে পদত্যাগ করেছে শেখ সাবাহ আল-খালিদ আল-সাবাহ’র সরকার।

রাজনৈতিক বিশ্লেষকরা বলছেন, এই পদত্যাগের কারণে কুয়েতে চলমান রাজনৈতিক অচলাবস্থার অবসান ঘটতে যাচ্ছে।

প্রধানমন্ত্রী শেখ সাবাহ আল-খালিদ আল-সাবাহ সোমবার দেশটির আমির শেখ নওয়াফ আল-আহমদ আল-জাবের আল-সাবাহর কাছে পদত্যাগপত্র জমা দিয়েছেন বলে খবর এসেছে কুয়েতের সংবাদমাধ্যম আল কাবাস এবং আল রাই।

সংসদে বিরোধীদের সঙ্গে বিরোধের জেরে চলতি বছরে দেশটির প্রধানমন্ত্রী শেখ সাবাহ আল-খালিদ আল-সাবাহ নেতৃত্বাধীন সরকার এ নিয়ে দ্বিতীয়বারের মতো পদত্যাগ করল।

এই পদত্যাগের বিষয়ে চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত নেওয়ার ক্ষমতা রয়েছে দেশটির আমির শেখ নওয়াফ আল-আহমদ আল-জাবের আল-সাবাহর। তিনি মন্ত্রিসভার এই পদত্যাগপত্র গ্রহণ করবেন কি-না তা এখনও নিশ্চিত নয়।

গত জানুয়ারিতে কুয়েতের তৎকালীন সরকারের পদত্যাগের পর প্রধানমন্ত্রী শেখ সাবাহ আল-খালিদ আল-সাবাহ নেতৃত্বাধীন সরকার মার্চে গঠন করা হয়।

করোনাভাইরাস মহামারী মোকাবিলা ও দুর্নীতি প্রতিরোধ নিয়ে গৃহীত কার্যক্রম সম্প্রতি প্রধানমন্ত্রী শেখ সাবাহ আল-খালিদ আল-সাবাহ দেশটির পার্লামেন্টে বিরোধদলীয় সদস্যদের তোপের মুখে পড়েন।

গত বছর জ্বালানি তেলের দাম নির্ধারণ নিয়ে বৈশ্বিক জোট ওপেকের সঙ্গে আলোচনা ফলপ্রসূ না হওয়ায় বিশ্ব বাজারে প্রতিযোগিতায় পিছিয়ে পড়ে কুয়েত। তারপর করোনাভাইরাস মহামারীতে অর্থনীতির ধস ঠেকাতে যখন সরকারের ব্যর্থতা নিয়ে তুমুল সমালোচনা তো রয়েছেই।

কুয়েতে কয়েক বছর ধরে মন্ত্রিসভা এবং পার্লামেন্টের মধ্যে বিরোধ, সরকারের রদবদলে বিনিয়োগ ও সংস্কার বাধাগ্রস্ত হচ্ছে বলে জানিয়েছেন রাজনৈতিক বিশ্লেষকরা।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

     এই বিভাগের আরও খবর..

ফেসবুকে আমরা

Facebook Pagelike Widget